1. kumarshuvoroy.bd@gmail.com : Shuvo Roy : Shuvo Roy
  2. eshuvo1@gmail.com : newsdesk :
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৫৫ অপরাহ্ন

মেয়রের বাড়িতে আগুন : সাত শতাধিক গ্রেপ্তার

  • প্রকাশের সময়ঃ রবিবার, ২ জুলাই, ২০২৩
  • ১১৩ জন দেখেছেন

পিরোজপুর বার্তা ডেষ্ক : ফ্রান্সে চলমান বিক্ষোভের পঞ্চম দিনে দেশটির রাজধানী প্যারিসের এক মেয়রের বাড়িতে প্রবেশ করে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ ঘটিয়েছে বিক্ষোভকারীরা। এ ঘটনায় সংশ্লিষ্টতার অভিযোগে রাজধানীসহ সারাদেশ থেকে শনিবার (১ জুলাই) সাত শতাধিক মানুষকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। প্যারিসের উপশহর লিলেস রোজেসের দক্ষিণ শহরতলির মেয়র ভিনসেন্ট জিনব্রানের বাসভবনে শনিবার রাতে হামলা চালায় বিক্ষোভকারীরা।

রবিবার (২ জুলাই) মেয়র ভিনসেন্ট এক বিবৃতিতে বলেন, বিক্ষোভকারীরা তাদের কাপুরুষতা দেখিয়েছে। গতকাল জরুরি বৈঠকে সিটি হলে ছিলাম আমি। রাত দেড়টার দিকে একদল বিক্ষুব্ধ মানুষ আমার বাড়ির গেট ভেঙে গাড়ি ভাঙচুর করে এবং পরে বাড়িতে অগ্নিসংযোগ করে। সেই সময় আমার স্ত্রী ও দুই সন্তান ঘুমিয়ে ছিলেন। আমার স্ত্রী জীবন বাঁচানোর জন্য দুই সন্তানকে নিয়ে বাড়ির পেছনের দরজা দিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় আহত হয়েছেন। আমাদের এক সন্তানও আহত হয়েছে।

এর আগে গত ২৭ জুন প্যারিসের উপশহর নানতেরে ট্রাফিক আইন অমান্য করার অভিযোগে নাহেল নামের অপ্রাপ্তবয়স্ক এক তরুণকে গাড়ি থামানোর জন্য বলেছিল পুলিশ। কিন্তু সেই তরুণ গাড়ি না থামানোয় তাকে লক্ষ্য করে এক পুলিশ সদস্য গুলি করলে ঘটনাস্থলেই নিহত হয় তরুণ নাহেল।এ তরুণের মৃত্যুর পর থেকে বিক্ষোভ দানা বাঁধে নানতেরে। নাহেলের মা মৌনিয়া বিকেলের দিকে এক ভিডিওতে তার ছেলেকে হত্যাকারী পুলিশ সদস্যের বিচার দাবি করেন। ভিডিওটি তাৎক্ষণিক ফ্রান্সের সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়। আর ভিডিওটি ভাইরাল হওয়ার পরই বিক্ষোভ শুরু হয় দেশজুড়ে। নিহত নাহেল ও তার মা আলজেরীয় বংশোদ্ভুত এবং তারা মুসলিম।

এদিকে সেই বিক্ষোভ দেশজুড়ে দাঙ্গায় রূপ নিয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, দেশটিতে গত ৫ দিনে অন্তত ১০টি শপিং মল, ২০০ সুপারমার্কেট, ২৫০টি তামাকজাত পণ্যের দোকান, ২৫০টি ব্যাংক এবং শত শত সরকারি ভবনে হামলা-ভাঙচুর ও লুটপাট ঘটিয়েছে বিক্ষোভকারীরা।

শেয়ার করুন

একই ধরনের আরও খবর
© পিরোজপুর বার্তা সকল অধিকার সংরক্ষিত ২০২৩
Developed By Pirojpur Barta